চূড়ান্ত লড়াইয়ে ১৮৪১ প্রার্থী, স্বতন্ত্র ৯৬

458

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রার্থিতা প্রত্যাহার শেষে মোট প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী দাঁড়াল ১৮৪১জনে । আর এদের মধ্যে দলের ১৭৪৫ জন আর স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে আছেন ৯৬ জন। রিটার্নিং কর্মকর্তাদের পাঠানো তথ্য বিশ্লেষণ করে সোমবার নির্বাচন কমিশনের নির্বাচন পরিচালনা শাখা এ তথ্য জানিয়েছে।

সূত্র জানায়, সবচেয়ে বেশি প্রার্থী রয়েছে কুমিল্লা-৩ আসনে । আর সবচেয়ে কম হিসেবে ৩ জন করে রয়েছে চট্টগ্রাম-৬, বান্দরবান, বি. বাড়িয়া-৪, গোপালঞ্জ-২, মাদারীপুর-৩, রাজবাড়ি-১, ময়মনসিংহ-১, শেরপুর-২, ভোলা-৪, ভোলা-২, সাতক্ষীরা-৩, ঝিনাইদহ-১, মাগুরা-২, রাজশাহী-৪, সিরাজগঞ্জ-১, চাপাইনবাবগঞ্জ-২, নীলফামারী-৩ আসনে। ৯ডিসেম্বর ছিল প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ দিন। এবার মোট ৩ হাজার ৬৫ জন প্রার্থি মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। ২০১৪ সালে দশম সংসদ নির্বাচনে ১২টি দল ও স্বতন্ত্র মিলে মোট ১৪৭ আসনে ৩৯০ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন।

সে সময় ১৫৩ আসনে প্রার্থী বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছিল। ২০০৮ সালের নবম সংসদ নির্বাচনে ৩৮টি দল অংশ নিয়েছিল। সে সময় স্বতন্ত্রসহ মোট প্রার্থী ছিল ১ হাজার ৫৬৭জন।

ইতিমধ্যে সোমবার প্রার্থিদের প্রতীক বরাদ্দ দিয়েছেন রিটার্নিং কর্মকর্তারা। নির্বাচন কমিশন সংসদ নির্বাচনের জন্য ৬৪টি প্রতীক সংরক্ষণ করেছে। এরমধ্যে ৩৯টি নিবন্ধিত দলকে নিজের প্রতীক এবং স্বতন্ত্র প্রার্থীদের অবশিষ্টগুলো থেকে প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হয়েছে৷