সাতক্ষীরার বাঁশদহা চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ

161

জেলা প্রতিনিধি সাতক্ষীরা:

সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ১নং বাঁশদহা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এস,এম মোশাররফে এর বিরুদ্ধে অবৈধ্য ভাবে ঘর বিতরনের অভিযোগ উঠেছে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর (০৫) ইউ,পি সদস্য/সদস্যা লিখিত ভাবে এক অভিযোগ দায়ের করেছেন। অভিযোগের ভিক্তিতে জানা যাই বাঁশদহা ইউনিয়ন ছেয়ারম্যান এর কাছে ২০ টি ঘর এসেছে। যাহা গরিব দুঃখি মানুষের মধ্যে বিতরন করতে হবে। চেয়ারম্যান কোন ইউ,পি সদস্যকে না জানিয়ে মোটা অংকের টাকার বিনিমিয় ১নং ওয়ার্ডে ১৪টি ঘর,২নং ওয়ার্ডে ০৪টি,৪নং ওয়ার্ডে ০২টি ঘর দিয়েছে। বাকি ০৬ টি ওয়ার্ড ঘর হতে বঞ্চিত হয়েছে। ইউনিয়নের ০৯টি ওয়ার্ডেই গবির দুঃখি থাকার সত্বেও চেয়ারম্যান নিজের ইচ্ছা খুশি মত মাত্র তিন টি ওয়ার্ডে ঘর দিয়েছে। তাই ক্ষুব্ধ হয়ে ইউ,পি সদস্য/সদস্যারা চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর আবেদন করেছেন। এবিষয়ে ৮নং ওয়ার্ড সদস্য মহাসিন আলীর কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন চেয়ারম্যান ৩০ হাজার টাকার বিনিময়ে একটি করে ঘর দিয়েছে। এবং এই টাকা তিনি নিজ হতে গ্রহন করিনি। তার সহযোগিদের মাধ্যমে টাকা গ্রহন করেছে। তিনি আরও বলেন আমরা চাই গরিব মানুষ কোন টাকা ছাড়া ঘর পাক সে জন্য অভিযোগ করেছি। এবিষয় বাঁশদহা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোশাররফের কাছে জানার চেষ্টা করলে তার ব্যবহারিত মুঠো ফোন-০১৭১৩-৭৩৭১৫১ তে ফোন দিলে তিনি রিসিভ করেননি। এব্যপারে নাম প্রকাশ না করার শর্তে ভুক্তভোগি এক ঘর গ্রহীতা বলেন মাননীয় প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা আমাদের দুঃখ দেখে বিনা টাকায় ঘর দিয়েছেন। আর ঘুস ঘোর চেয়ারম্যান মোশারাফ আমাদের ৩০ হাজার করে টাকা দিয়েছে। আমরা গরু,ছাগল বেচে চেয়ারম্যান কে টাকা দিয়েছি। তাই আমাদের টাকা যাতে ফেরত পাই ও ফ্রি ঘর পাই সেই ব্যবস্থা যেন হয়। তাই সচেতন মহলের দাবি যাতে এই গবির দুঃখি মানুষেরা ন্যায্য বিচার পাই সে জন্য প্রশাসনে দৃষ্টি আকার্ষন করেছেন।