হুসাইন মোহাম্মদ এরশাদের রেখে যাওয়া স্মৃতি লাঙ্গল প্রতীক নিয়ে ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী রাসেল

40

আবু দাউদ ইমরান।।

পল্লী বন্ধু সাবেক রাষ্ট্র নায়ক আলহাজ্ব হুসাইন মোহাম্মাদ এরশাদের স্মৃতি লাঙ্গল প্রতীক নিয়ে আসন্ন ইউপি নির্বাচন ২০২১ খুলনা ৫নং আড়ংঘাটা ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন আগামী ২০ সেপ্টেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। জাতীয় পার্টির মনোনীত চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী মো. রাসেল হোসেন প্রথমবারের মত নির্বাচনে অংশগ্রহণ করছেন। মো. রাসেল হোসেন তাঁর নির্বাচনী এলাকায় স্বাস্থ্যবিধি ও নির্বাচন আচারনবিধি মেনে গণসংযোগ উঠান বৈঠক সহ ভোটারদের সাথে কুশল বিনিময় করছেন। বিশেষ এক স্বাক্ষাতকারে মো. রাসেল হোসেন জনগনের উদ্যেশে বলেছেন পরিবর্তন ছাড়া উন্নয়ন হয় না। তাই আমাকে অন্তটি একটি বার চেয়ারম্যান হিসেবে নিযুক্ত করলে এলাকায় সামাজিক ন্যায় বিচার প্রতিষ্ঠিত সহ মাদক সন্ত্রাসী যৌতুক প্রথা বাল্য বিয়ে প্রতিরোধ করা হবে। তাছাড়া ৯টি ওয়ার্ডের মেম্বরদের সমানভাবে মূল্যায়ন করা হবে। মসজিদ মাদ্রাসা মন্দির গীর্জা স্কুল রাস্তাঘাট কালভাট সহ খাল খনন করে জলবদ্ধতা নিরসন করা হবে।

তিনি বলেন, তাঁর নির্বাচনী এলাকায় ৩টি ভোটকেন্দ্র ঝুঁকিপূর্ণ রয়েছে। যেমন , ১,৩,৭নং ওয়ার্ড ঝুঁকিপূর্ণষ । বিষয়টি নির্বাচন কমিশনসহ স্থানীয় প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষন করছি। উল্লেখ্য, সরকারের দেওয়া বরাদ্দ এলাকার মুরব্বীদের সাথে নিয়ে সুস্ঠভাবে বিতরন করা হবে। সঠিকভাবে যদি নির্বাচন হয় তাহলে শেখ রাসেলের লাঙ্গল প্রতীক বিপুল ভোটে বিজয়ী হবে। তিনি আরো বলেন, দলমত নির্বিশেষে সকলের স্বত:র্স্ফুত সাড়া পেয়েছি। এলাকার বিভিন্ন হিন্দু বৌদ্ধ খিষ্টান মুসলিম সকলের দোয়া আর্শীবাদ নিয়ে নির্বাচনে অংশ নিয়েছি।

মো. রাসেল হোসেনের সংক্ষিপ্ত পরিচয় : তিনি আড়ংঘাটার ৯নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা। আব্দুল মান্নান ভাঙ্গীর পূত্র। মাতা মোসাৎ হালিমা বেগম। চার ভাই , দুই বোন । সামাজিক পরিচয়: আড়ংঘাটা থানা শাখার জাতীয় পার্টির সেক্রেটারী। খুলনা মহানগর আহবায়ক কমিটির সদস্য। গাইকুর ইসলামিয়া এমতেজাম কমিটির আজীবন সদস্য। খুলনা উন্নয়ন সংগ্রাম পরিষদের বিভিন্ন কর্মসূচিতে দীর্ঘ দিন সক্রিয় ভূমিকা রেখে চলেছেন এই তরুন জাপা নেতা। কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের জমি অধিগ্রহনের বিরুদ্ধে এলাকার জন মানুষের স্বার্থে আন্দলনে অংশ গ্রহন করে ছিলেন।

সর্বশেষ চেয়ারম্যান প্রার্থী রাসেল ভোট কেন্দ্রগুলোতে সিসি ক্যামেরার আওতায় আনার দাবী জানিয়েছেন এবং সকল ভোটারদের ভয়ভীতি উপেক্ষা করে উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্যে দিয়ে ভোট কেন্দ্রে আসার জন্য অনুরোধ জানিয়েছেন। এছাড়া তরুন যুব সমাজকে সাথে নিয়ে নির্বাচনে জয় হোক বা পরাজয় হোক আগামী দিনে এলাকার উন্নয়ন করে যাবার প্রতিশ্রুতি ব্যাক্ত করেন তরুন এই নেতা।